প্রাথমিক পরীক্ষায় থাকছে না এমসিকিউ

প্রকাশিত

চলতি বছর থেকে পঞ্চম শ্রেণির প্রাথমিক শিক্ষা সমাপনী (পিইসি) ও ইবতেদায়ী পরীক্ষায় এমসিকিউ বা বহু নির্বাচনী অংশ বাদ দেওয়ার সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। তার বদলে সৃজনশীল প্রশ্ন অন্তর্ভুক্ত করা হবে। এ বিষয়ে একটি প্রজ্ঞাপনও জারি করা হয়েছে বলে জানিয়েছেন প্রাথমিক ও গণশিক্ষামন্ত্রী মোস্তাফিজুর রহমান।

মঙ্গলবার (৩ এপ্রিল) দুপুরে প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয়ের সভাকক্ষে অনুষ্ঠিত এক সংবাদ সম্মেলনে তিনি এ কথা জানান।

আরো পড়ুন :  আগৈলঝাড়ায় নেশাদ্রব্য খাইয়ে স্কুল ছাত্রীকে গণধর্ষণ মামলার আসামী গ্রেফতার

মন্ত্রী বলেন, প্রশ্ন ফাঁসরোধ, শিক্ষার সুষ্ঠু পরিবেশ বিশেষ করে শিক্ষার্থীদের মেধা বিকাশের জন্য সবার মতামত নিয়ে আগামী পরীক্ষায় এমসিকিউ বাদ দেওয়া হচ্ছে। এর পরিবর্তে সংক্ষিপ্ত প্রশ্নের উত্তর দিতে হবে শিক্ষার্থীদের। আগে যেখানে টিক চিহৃ দিতে হতো এখন সেখানে দুই এক লাইন লিখতে হবে। তাতে লেখা ও পড়ায় মনোযোগী হবে শিক্ষার্থীরা।

আরো পড়ুন :  মুক্তিযোদ্ধাদের নামে স্থানীয় সড়কের নামকরণ করা হবে : আ ক ম মোজাম্মেল হক

প্রসঙ্গত, আগামী নভেম্বরের মাঝামাঝিতে চলতি বছরের প্রাথমিক ও ইবতেদায়ি শিক্ষা সমাপনী পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হবে।

প্রাথমিক শিক্ষা সমাপনীতে এবার সর্বমোট (মেধা ও সাধারণ কোটায়) বৃত্তি পেয়েছে ৮২৪৯৮ জন শিক্ষার্থী।

এ বছর মেধা কোটায় (ট্যালেন্টপুলে) বৃত্তি পেয়েছে ৩২ হাজার ৯৯৮ জন শিক্ষার্থী। আর সাধারণ কোটায় বৃত্তি পেয়েছে ৪৯ হাজার ৫০০ জন।

মোস্তাফিজুর রহমান বলেন, ঝরে পড়া রোধ, শ্রেণিকক্ষে উপস্থিতি বৃদ্ধি ও সুষম মেধাবিকাশে প্রাথমিক শিক্ষা সমাপনী পরীক্ষার ফলাফলের ভিত্তিতে এ বৃত্তি দেওয়া হয়েছে। বৃত্তি পাওয়া শিক্ষার্থীরা অষ্টম শ্রেণি পর্যন্ত ট্যালেন্টপুলে যারা মাসে ৩০০ টাকা করে এবং সাধারণ কোটায় বৃত্তিপ্রাপ্তরা মাসে ২২৫ টাকা করে পাবে।

আরো পড়ুন :  ‘বঙ্গবন্ধুর খুনিদের দেশে এনে দণ্ড কার্যকরের চেষ্টা অব্যাহত’

প্রাথমিক শিক্ষা অধিদপ্তরের ওয়েবসাইটে www.dpe.gov.bd ফলাফল পাওয়া যাবে।