ফরিদপুরে ১১ বছর পর ধর্ষকের যাবজ্জীবন

প্রকাশিত

ফরিদপুর প্রতিনিধি- 

ফরিদপুরে বিয়ের প্রলোভন দেখিয়ে এক তরুণীকে ধর্ষণের দায়ে আশসাব শেখ (৩০) নামে এক যুবকের যাবজ্জীবন কারাদণ্ড দিয়েছেন আদালত। একই সঙ্গে তাকে ১০ হাজার টাকা জরিমানা অনাদায়ে আরও চার মাসের কারাদণ্ড দেয়া হয়েছে।

বৃহস্পতিবার দুপুরে নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইব্যুনালের বিচারক (জেলা ও দায়রা জজ) মো. আলমগীর কবির এ রায় দেন। রায় ঘোষণার সময় আসামি আদালতে উপস্থিত ছিলেন।

মামলার বিবরণে জানা যায়, ফরিদপুরের আলফাডাঙ্গা উপজেলার পাচুড়িয়া ইউনিয়নের ধুলজুরী গ্রামের বাসিন্দা কালা মিয়া শেখের ছেলে আশসাব শেখ একই গ্রামের এক তরুণীর বাড়িতে গিয়ে গভীর রাতে তাকে বিয়ের প্রলোভন দেখিয়ে ধর্ষণ করে। এ ঘটনায় ২০০৭ সালের ১৫ মে আলফাডাঙ্গা থানায় ওই তরুণী বাদী হয়ে ধর্ষণ মামলা দায়ের করেন। পরে পুলিশ আশসাব শেখকে গ্রেফতার করে আদালতে সোপর্দ করে। দীর্ঘ ১১ বছর পর মামলার শুনানি শেষে আদালত আজ এই রায় দেন।

আরো পড়ুন :  তরুণী ধর্ষণে নেতৃত্ব বিজেপি নেতার, বিচার চাওয়ায় বাবাকে পিটিয়ে হত্যা পুলিশের!

নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইব্যুনালের পিপি স্বপন পাল জানান, ঘটনার পর ওই তরুণী বাদী হয়ে আশসাবকে একমাত্র আসামি করে আলফাডাঙ্গা থানায় নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনে আলফাডাঙ্গা থানায় মামলা দায়ের করেন। মামলার শুনানি ও সাক্ষ্যগ্রহণ শেষে আদালত আশসাবকে যাবজ্জীবন কারাদণ্ড এবং ১০ হাজার টাকা জরিমানা অনাদায়ে আরও চার মাসের কারাদণ্ড দিয়েছেন। দণ্ডপ্রাপ্ত আসামিকে কারাগারে পাঠানো হয়েছে।

24Shares