পাকিস্তান-শ্রীলঙ্কা ব্যর্থ হলেও সফল বাংলাদেশ, আর ভারত?

প্রকাশিত

অনলাইন ডেস্ক-

এবারের ইংল্যান্ড বিশ্বকাপে অংশ নিচ্ছে এশিয়া উপমহাদেশের ৫ দেশ। বাকি বিশ্বের ৫ দেশ। চলতি বিশ্বকাপে এখন পর্যন্ত মাঠে নেমেছে পাকিস্তান, শ্রীলঙ্কা, আফগানিস্তান এবং বাংলাদেশ। পাকিস্তান, শ্রীলঙ্কা এবং আফগানিস্তান নিজেদের প্রথম ম্যাচে শোচনীয় পরাজয় বরণ করেছে। তবে বাংলাদেশ নিজেদের প্রথম ম্যাচে শক্তিশালী  প্রতিপক্ষ দক্ষিণ আফ্রিকাকে পরাজিত করেছে। এখন বাকি রয়েছে শুধু ভারত। কেননা, এখনও তারা মাঠের লড়াইয়ে প্রতিপক্ষের সম্মুখিন হয়নি।

বিশ্বকাপের দ্বিতীয় দিনই মাঠে নাম পাকিস্তান। তাদের প্রতিপক্ষ ছিল ওয়েস্ট ইন্ডিজ। সেই ম্যাচে পাকিস্তানিরা অলআউট হয়েছে মাত্র ১০৮ রানে। ৭ উইকেটের জয় নিয়ে মাথা ছাড়ে আন্দ্রে রাসেলরা। পরের দিন নিউজিল্যান্ডের মুখোমুখি হয় শ্রীলঙ্কা। কিউই বোলারদের তোপে লঙ্কানরা অলআউট হয় মাত্র ১৩৬ রানে। জবাবে ব্যাট করতে নেমে ১০ উইকেটে জয় পায় কিউইরা। অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে নিজেদের প্রথম ম্যাচ খেলতে নামে আফগানিস্তান। অজিদের বিপক্ষে ভালোই লড়াই করেছে রশিদ খানেরা। তারা করে ২০৭ রান। যদিও ৭ উইকেটের ব্যবধানে তাদেরকে সহজেই হারায় অস্ট্রেলিয়া

এরপর এশিয়ার দলগুলোর মধ্যে মাঠে নামে বাংলাদেশ। লন্ডনের দ্য ওভালে দক্ষিণ আফ্রিকার মত শক্তিশালী দেশকে ২১ রানে হারিয়ে দেয় বাংলাদেশ। টস হেরে ব্যাট করতে নেমে নির্ধারিত ৫০ ওভারে ৩৩০ রানের বিশাল স্কোর দাঁড় করায় টাইগাররা। শেষ পর্যন্ত লড়াই করেও দক্ষিণ আফ্রিকার ইনিংস থেমে যায় ৩০৯ রানে। ২১ রানের জয় নিয়ে বিশ্বকাপে দুর্দান্ত সূচনা করে বাংলাদেশ।

টাইগারদের এই জয়ের ফলে চলতি বিশ্বকাপে এশিয়ার প্রথম দেশ হিসেবে জয় পেল টাইগাররা। আগামী ৫ জুন দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষেই প্রথম মাঠে নামবে ভারত। ওই ম্যাচে কি করে সেটাই এখন দেখার বিষয়। ভারত কী পারবে এশিয়ার সুনাম অক্ষুণ্ণ রাখতে রাখতে নাকি এশিয়া সম্মান ধরে রাখবে টাইগারদের এই জয়?