কিশোরগঞ্জে এইচএসসিতে জিপিএ-৫ পেয়েছে ১৮৬ জন শিক্ষার্থী

প্রকাশিত

এ.এম. উবায়েদ, কিশোরগঞ্জ প্রতিনিধি-এইচএসসি পরীক্ষার ফলাফলে কিশোরগঞ্জের সরকারি গুরুদয়াল কলেজ জেলায় সবচেয়ে ভাল ফল অর্জন করেছে। কলেজটির ১ হাজার ৯৬৩ জন পরীক্ষার্থীর মধ্যে পাশ করেছে ১ হাজার ৫৬৯ জন, পাশের হার শতকরা প্রায় ৭৯.৯ ভাগ। এর মধ্যে জিপিএ-৫ পেয়েছে ১১৭ জন। এছাড়া এবার শতকরা পাশের হারও বেড়েছে। গতবার প্রতিষ্ঠানটির শতকরা পাশের হার ছিল প্রায় ৭৬.২৭ ভাগ। এবার বেড়ে দাঁড়িয়েছে প্রায় ৭৯.৯৩ ভাগ।

এবারের এইচএসসি পরীক্ষায় সরকারি গুরুদয়াল কলেজ থেকে ব্যবসায় শিক্ষা শাখায় মোট ৬০৮ জন পরীক্ষার্থীর মধ্যে পাশ করেছে মোট ৪৪৩ জন। তাদের মধ্যে জিপিএ-৫ পেয়েছে ৪ জন। মানবিক শাখায় মোট ৭৫৪ জন পরীক্ষার্থীর মধ্যে পাশ করেছে মোট ৫২৯ জন। তাদের মধ্যে জিপিএ-৫ পেয়েছে ১৭ জন। বিজ্ঞান শাখায় মোট ৬২৯ জন পরীক্ষার্থীর মধ্যে পাশ করেছে মোট ৫৯৭ জন। তাদের মধ্যে জিপিএ-৫ পেয়েছে ৯৬ জন।

ঘোষিত এইচএসসি পরীক্ষার ফলাফলে কিশোরগঞ্জ জেলায় মোট ১২ হাজার ৯৮২ জন উত্তীর্ণ শিক্ষার্থীর মধ্যে মোট ১৮৬ জন জিপিএ-৫ পেয়েছে। জেলার মোট ৫৮টি কলেজের মধ্যে ২০টি কলেজ থেকে এই ১৮৬ জন জিপিএ-৫ পেয়েছে।

এছাড়া পাকুন্দিয়া উপজেলার পাকুন্দিয়া কলেজ, চরটেকী গার্লস স্কুল এন্ড কলেজ, কিশোরগঞ্জ সদর উপজেলার রফিকুল ইসলাম কলেজ, ভৈরবের সরকারি জিল্লুর রহমান মহিলা কলেজ এবং এসআরডি শামছ উদ্দিন ভূঁইয়া কলেজ থেকে ২ জন করে পরীক্ষার্থী জিপিএ-৫ পেয়েছে।অন্যদিকে হোসেনপুর কলেজ, শিমুলকান্দি কলেজ, কিশোরগঞ্জ পৌর মহিলা কলেজ, জেড রহমান প্রিমিয়ার ব্যাংক স্কুল এন্ড কলেজ, মিঠামইন মুক্তিযোদ্ধা আবদুল হক কলেজ, শিমুলিয়া উচ্চ মাধ্যমিক বিদ্যালয় এবং পাকুন্দিয়া আদর্শ মহিলা কলেজ থেকে ১ জন করে পরীক্ষার্থী জিপিএ-৫ পেয়েছে।

এছাড়া ভৈরব রফিকুল ইসলাম মহিলা কলেজ থেকে ১৭ জন জিপিএ-৫ পেয়েছে। অন্যদিকে বাজিতপুর আফতাব উদ্দিন উচ্চ মাধ্যমিক বিদ্যালয় থেকে ১৬ জন জিপিএ-৫ পেয়েছে। ভৈরব হাজী আসমত কলেজ, এবং কটিয়াদী কলেজ থেকে ৫ জন করে পরীক্ষার্থী জিপিএ-৫ পেয়েছে। একইভাবে গচিহাটা কলেজ, করিমগঞ্জ কলেজ ও কিশোরগঞ্জ সরকারি মহিলা কলেজ থেকে ৩ জন করে পরীক্ষার্থী জিপিএ-৫ পেয়েছে।