বরিশালে হাসপাতালে বেড়েই চলেছে ডেঙ্গু

প্রকাশিত

গৌরনদী(বরিশাল)প্রতিনিধিঃ  ব‌রিশাল শেরে-ই বাংলা মে‌ডি‌কেল হাসপাতা‌লে ডেঙ্গু রোগীর সংখ্যা বেড়েই চলছে। আজ সোমবারও এই হাসপাতালে ভ‌র্তি আছেন ১৫৪ জন ডেঙ্গু রোগী। গতকাল রবিবার ভর্তি ছিলো ১৪৮ জন। এদি‌কে। ডেঙ্গু রোগীর‌চিকিৎসায় চি‌কিৎসক‌দের দক্ষতা বৃদ্ধির লক্ষ্যে আজ এক প্রশিক্ষন কর্মশালার আয়োজন করে শেরে-ই বাংলা মে‌ডিকেল ক‌লেজ হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ।

গত ২৪ ঘন্টায় ডেঙ্গু রোগে আক্রান্ত হয়ে শেরে-ই বাংলা ভ‌র্তি হ‌য়ে‌ছেন ৪৬ জন। এই সময়ে চিকিৎসায় সুস্থ হ‌য়ে বা‌ড়ি ফি‌রে‌ছেন ৪০ জন। আজ চি‌কিৎসাধীন থাকা ১৫৪ জ‌নের ম‌ধ্যে পুরুষ ৯৪ জন, ম‌হিলা ৪৫ জন এবং ১৫ জন শিশু। গত ২৪ ঘন্টায় নতুন ভর্তি হওয়া ৪৬ ডেঙ্গু রোগীর মধ্যে পুরুষ ২৬ জন, ম‌হিল‌া ১৪ এবং ৬ জন শিশু ।
গত ১৬ জুলাই থে‌কে আজ পর্যন্ত ডেঙ্গু আক্রান্ত হয়ে শেরে-ই বাংলা মেডিকেলে ভর্তি হয়েছেন ৩০৬ জন রোগী। এদের মধ্যে চিকিৎসায় সুস্থ হ‌য়ে বা‌ড়ি ফি‌রে গেছেন ১৫২জন। মারা গেছে ২জন। এছাড়া গৌরনদী স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে এক নারী ডেঙ্গু রোগীর মৃত্যু হয়।

 

 

এদিকে, ডেঙ্গু রোগের চিকিৎসা ব্যবস্থাপনায় চিকিৎসকদের দক্ষতা বৃদ্ধির লক্ষ্যে ৩০০ চিকিৎসকদের নিয়ে আজ এক প্রশিক্ষন কর্মশালার আয়োজন করে মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ। শেরে-ই বাংলা মেডি‌কেল ক‌লে‌জের ১নম্বর গ্যালারী‌তে মেডিকেল কলেজের ভারপ্রাপ্ত অধ্যক্ষ অধ্যাপক ডা. মাকসুমুল হকের সভাপতিত্বে প্রশিক্ষন কর্মশালায় প্রধান অতিথি ছিলেন বিভাগীয় কমিশনার মোহাম্মদ ইয়ামিন চৌধুরী।

বিশেষ অতিথি ছিলেন সোসাইটি অব মেডিসিন বরিশাল বিভাগীয় সভাপতি অধ্যাপক ডা. মো. সাইদুর রহমান, সাধারন সম্পাদক অধ্যাপক ডা. ভাস্কর সাহা, বিভাগীয় স্বাস্থ্য পরিচালক ডা. আব্দুর রহিম, বিএমএ জেলা সভাপতি ডা. মো. ইসতিয়াক হোসেন, হাসপাতালের পরিচালক ডা. বাকির হোসেন, মেডিসিন বিভাগের অধ্যাপক ডা. অসিত ভ‚ষন দাস ও শিশু বিভাগের বিভাগীয় প্রধান ডা. অসিম কুমার সাহা।

এছাড়া বিশেষজ্ঞ প্রশিক্ষক ছিলেন ঢাকা মেডিকেল কলেজের মেডিসিন বিভাগের সহযোগী অধ্যাপক ডা. একেএম হুমায়ুন কবির ও সহযোগী অধ্যাপক ডা. গোবিন্দ চন্দ বনিক। এই প্রশিক্ষনের মধ্য দিয়ে চিকিৎসকরা সঠিকভাবে ডেঙ্গু রোগের ব্যবস্থাপনা করতে পারবেন বলে আশা কর্তৃপক্ষের। দুই দিনব্যাপী প্রশিক্ষক কর্মশালার শেষ দিন আগামীকাল হাসপাতালের নার্সদের নিয়ে একই বিষয়ে প্রশিক্ষক কর্মশালা অনুষ্ঠিত হওয়ার কথা রয়েছে।