সিরাজগঞ্জ মহিষামুড়াতে চতুর্থ শ্রেণি ছাত্রীকে ধর্ষণের চেষ্টার অভিযোগ

প্রকাশিত

মারুফ সরকার : সিরাজগঞ্জ –
সিরাজগঞ্জ সদর উপজেলার রতনকান্দি ইউনিয়নে মহিষামুড়া গ্রামে চতুর্থ শেণির এক স্কুল ছাত্রীকে ধর্ষণের চেষ্টা অভিযোগ উঠেছে। গত ৫ আগস্ট স্কুল ছাত্রীর বাবা মোঃ ওবায়দুল্লাহ বাদী হয়ে সিরাজগঞ্জ সদর থানায় মামলা দায়ের করেন। মামলা সূত্রে জানা যায় যে গত ৩ আগস্ট সকাল ১০টায় মোঃ হারুন অর রশিদ( হারান) (৩৫) একই গ্রামের মোঃ ওবায়দুল্লাহর নাবালিকা মেয়েকে (৯) ধর্ষণ চেষ্টা করে। পরবর্তীতে মেয়েটির আতœীয় স্বজন আসিয়া ছেলেটি ধৃত করার চেষ্টা করলে ছেলেটি ঘর থেকে পালিয়ে যায়। এ ব্যাপারে মেয়েটির বাবা মোঃ ওবায়দুল্লাহ জানান আমার মেয়েটিকে একা পেয়ে যে কাজটি করেছে হারান আমি তার উপর্যুক্ত বিচার চাই। এদিকে এলাকার মাতব্বরেরা এ ব্যাপারটি সমাধানের চেষ্টা করে। কিন্তু আসামী পক্ষ তা মেনে না নিয়ে মেয়ে পক্ষের বিরুদ্ধে সিরাজগঞ্জ জজ কোটে মামলা দায়ের করেন এবং মেয়েটির পরিবারকে বিভিন্ন ভয়ভ্রীতি দেখাচ্ছে। ছেলেটির পরিবার প্রভাবশালী তাই কেউ তাদের বিরুদ্ধে কথা বলার সাহস পাচ্ছে না। এদিকে আসামী পক্ষের স্ত্রী এবং সন্তান রয়েছেন। তা স্বত্বেও তিনি তার সন্তানের বয়সের একটি মেয়েকে দর্ষণের চেষ্টা করে। এই বিষয়টি নিয়ে সাধারণ মানুষের মধ্যে ক্ষোভের সৃষ্টি হয়েছে। এ ব্যাপারে কথা হয় সিরাজগঞ্জ সদর থানার এস আই আনিসুর রহমানের সাথে। তিনি জানান যে মামলাটি রেকড হয়েছে। আমরা আসামী ধরার চেষ্টা করছি। খুব শ্রীঘ্রই আসামী ধরা পরবে। মহিষামুড়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের কিছু অভিভাবক এর সাথে কথা বললে তারা জানান আমরা আমাদের মেয়েদের নিয়ে এসব নর পিসাছের জন্য খুব আতঙ্কের মধ্যে আছি। তাই আমরা দাবি করি খুব দ্র্রুত আসামীকে দৃষ্টান্ত মুলক শাস্তি। এদিকে স্কুল ছাত্রীর সাথে আর যাতে এমন ঘটনা না হয় সেজন্য প্রসাশনের দৃষ্টি কামনা করেন এলাকাবাসীসহ স্কুল ছাত্রছাত্রীরা।