ফরিদপুরে আ.লীগের দুই পক্ষের সংঘর্ষে গুলিতে নিহত ২জন,গুলিবৃদ্ধসহ আহত ১০

প্রকাশিত

মাহবুব হোসেন পিয়াল,ফরিদপুর প্রতিনিধি -ফরিদপুরের নগরকান্দার কাইচাইল ইউনিয়নে আওয়ামীলীগের দু’পক্ষের সংঘর্ষে নিহত হয়েছে দুজন। আর এ ঘটনায় আহত হয়েছে কমপক্ষে ১০ জন। শনিবার সন্ধ্যার দিকে। কাইচাইল মধ্যপাড়া দারুল উলুম মাদরাসার কাছে এ ঘটনা ঘটে। নিহতরা হলেন ওই এলাকার মৃত আবু বক্করের ছেলে রওশন আলী মিয়া (৫২) ও একই এলাকার রায়হান মিয়ার ছেলে তুহিন মিয়া (২৫)।স্থানীয় ও পুলিশ জানায়, কাইচাইল ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান কবির হোসেন ঠান্ডু ও স্থানীয় আওয়ামীলীগ নেতা হাসানুজ্জামানের মধ্যে দীর্ঘদিন ধরে বিরোধ চলে আসছিল। এরই জের ধরে গত ২০১৭ সালের মাঝামাঝি সময়ে হাসানুজ্জামানের সমর্থক মহিদুলকে ঠান্ডুর সমর্থকরা হত্যা করে। এই ঘটনায় ঠান্ডু এবং তার সমর্থকদেরকে মামলায় আসামী করা হয়।
হাসানুজ্জামানের ভাই কেন্দ্রীয় যুবলীগ নেতা হানিফ ওরফে হৃদয় ঢাকা থেকে শনিবার বিকেলে বাড়ি যাওয়ার পথে ঘটনাস্থলে গেলে ঠান্ডুর সমর্থকরা তার উপর হামলা চালায়। এসময় হানিফ তার কাছে থাকা পিস্তল দিয়ে এলোপাথারি গুলি চালায়। এতে কয়েকজন গুলিবৃদ্ধ হয়। তাদেরকে উদ্ধার করে ফরিদপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে আসলে জরুরী বিভাগের কর্ত্যবরত ডাক্তার শাহিন মামুন রওশন মিয়া(৫২) ও তুহিন মিয়াকে(২৫) মৃত ঘোষনা করে। এর ভিতর রওশন মিয়া ফরিদপুর শহরের অগ্রনী ব্যাংকের ম্যানেজার ছিলো বলে পরিবারের লোকজন জানায়। বাকি আহত গুলিবৃদ্ধসহ মাওলা(৫০), আনিচ(১৯), বিপ্লব(৩০), রায়হান(৭০), গোলাাম রসুল(২৮)কে ভর্তি করা হয়েছে।

ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে নগরকান্দা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মিজানুর রহমান বলেন, এলাকার আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে কাইচাইল ইউনিয়নে আওয়ামী লীগের দুই পক্ষের সংঘর্ষে গুলিবিদ্ধ হয়ে দুজন নিহত হয়েছেন। এ ব্যাপারে থানায় মামলা দায়েরের প্রস্তুতি চলছে।