শোক দিবসে এমপি জাফরের ৩০ হাজার মানুষের গণভোজ

প্রকাশিত

কক্সবাজার প্রতিনিধি: কক্সবাজারের চকরিয়া-পেকুয়া আসনের সংসদ সদস্য ও চকরিয়া উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি জাফর আলম ৩০ হাজার মানুষের জন্য গণভোজের আয়োজন করেন। জাতীয় শোক দিবসে চকরিয়া ও পেকুয়া উপজেলায় ওই গণভোজের আয়োজন করা হয়। দুই উপজেলার অন্তত ৩০ হাজার মানুষ এই গণভোজে অংশ নেন আলাদা স্থানে।
এ ছাড়া চকরিয়ার উপজেলা নির্বাহী অফিসার নূরুদ্দীন মুহাম্মদ শিবলী নোমান ও পেকুয়ার উপজেলা নির্বাহী অফিসার মাহবুব-উল করিমের নেতৃত্বে উপজেলা প্রশাসন, মেয়র আলমগীর চৌধুরীর নেতৃত্বে পৌরসভা কর্তৃপক্ষ ছাড়াও দুই উপজেলার আওয়ামী লীগ এবং সহযোগী সংগঠন, সকল শিক্ষা প্রতিষ্ঠান, সরকারি-বেসরকারি সকল দপ্তর, সামাজিক ও স্বেচ্ছাসেবী সংগঠনগুলোর পক্ষ থেকে যথাযোগ্য মর্যাদায় পালন করা হয় জাতীয় শোক দিবস।
এমপি জাফর আলমের ব্যক্তিগত সহকারী ছালেহ আহমেদ সুজন ভোরের ডাক কে জানান, জাতীয় শোক দিবস উপলক্ষ্যে পবিত্র খতমে কোরআন, মিলাদ ও দোয়া মাহফিল, বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতিতে পুষ্পার্ঘ অর্পণ, শোকযাত্রা, আলোচনাসভাসহ নানা কর্মসূচির মধ্য দিয়ে পালন করা হয়েছে চকরিয়া ও পেকুয়ায়। অন্যান্য বছর জাতীয় শোক দিবসে স্বল্প পরিসরে আয়োজন করা হলেও এবার ব্যাপক পরিসরে দুই উপজেলার ৩০ হাজার মানুষের জন্য গণভোজের আয়োজন করা হয় এমপি জাফর আলমের পক্ষ থেকে। এর মধ্যে পেকুয়ার একাধিক স্থানে ৫ হাজার এবং চকরিয়ার বিভিন্ন স্থানে প্রায়০ ২৫ হাজার মানুষ গণভোজে অংশ নেয়।
এ প্রসঙ্গে সংসদ সদস্য জাফর আলম ভোরের ডাককে বলেন, প্রতিবছর শোকদিবসে আমার পক্ষ থেকে গণভোজের আয়োজন ছিল। এবার ব্যাপক পরিসরে দুই উপজেলায় গণভোজের আয়োজন করা হয়েছে। তাছাড়া প্রতিষ্ঠার পর থেকে অঘোষিতভাবে নিষিদ্ধ থাকা পেকুয়া জিয়াউর রহমান উপকূলীয় কলেজে প্রথমবারের মতো গণভোজসহ যথাযোগ্য মর্যাদায় শোক দিবস পালন করা হয়েছে। সেখানে কর্মসূচিতে অংশ নেন কয়েক হাজার মানুষ।