করিমগঞ্জে দুটি বাল্য বিবাহ বন্ধ করলেন উপজেলা নির্বাহী অফিসার

প্রকাশিত

এ.এম. উবায়েদ, কিশোরগঞ্জ প্রতিনিধি-
কিশোরগঞ্জের করিমগঞ্জ উপজেলায় ২টি বাল্য বিবাহ অনুষ্ঠান বন্ধ করলেন উপজেলা নির্বাহী অফিসার শরমিন আক্তার। বাল্য বিবাহ আয়োজনের দায়ে উপজেলা নির্বাহী অফিসার শরমিন আক্তার বর ও কনের পিতাকে ভ্রাম্যমান আদালতের মাধ্যমে ৫০ হাজার টাকা করে জরিমানা করেন।

গত বুধবার করিমগঞ্জ উপজেলার নোয়াবাদ গ্রামের সাইফুল ইসলামের পুত্র জয়নাল আবেদীন এর সাথে একই গ্রামের শিব্বির উদ্দিনের মেয়ে রেহেনার (১৫) বিয়ের আয়োজন করে। খবর পেয়ে পুলিশ বর ও কনের পিতাকে আটক করে। এছাড়াও বালিয়াপাড়া গ্রামের আমির উদ্দিনের কন্যা সুমাইয়া (১৫) এর সাথে শাহীন মিয়ার বিয়ের আয়োজন করলে খবর পেয়ে নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট কনের পিতা আমির উদ্দিনকে আটক করে।

 

 

পরে ভ্রাম্যমান আদালতের মাধ্যমে প্রত্যেককে ৫০ হাজার টাকা জরিমানা ও প্রাপ্ত বয়স না হওয়া পর্যন্ত তাদের বিয়ে দিতে পারবেন না বলে বর-কনের পিতা অঙ্গীকার করেন।