জগন্নাথপুরে স্বপ্নের রাণীগঞ্জ সেতুর কাজ দ্রুত চলছে, জনমনে সন্তোষ

প্রকাশিত

জগন্নাথপুর প্রতিনিধি-
সুনামগঞ্জ বাসীর স্বপ্নের রাণীগঞ্জ সেতুর নির্মাণ কাজ দ্রত এগিয়ে চলছে। কাজের অগ্রগতি দেখে স্থানীয়রা সন্তোষ প্রকাশ করেছেন। আর মাত্র ১০ মাস পরে সুনামগঞ্জ বাসীর স্বপ্ন পূরণ হতে চলেছে। বর্তমানে সুনামগঞ্জ জেলার বিভিন্ন উপজেলার লোকজন সুনামগঞ্জ থেকে সিলেট হয়ে ঢাকা চলাচল করছেন। তবে রাণীগঞ্জ সেতুটি চালু হলে সুনামগঞ্জ থেকে জগন্নাথপুর হয়ে ঢাকায় চলাচল করবেন। এতে সময় বাঁচকে প্রায় ৩ ঘন্টা। যে কারণে আরো দ্রুত সেতুটির কাজ সম্পন্ন করতে সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের প্রতি দাবি জানান স্থানীয় জনতা।
জানাযায়, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার আন্তরিকতায় ও পরিকল্পনামন্ত্রী এমএ মান্নানের প্রচেষ্টায় বিগত ২০১৭ সালে ৮৩ কোটি টাকা ব্যয়ে ৭০২ মিটার ও স্থানীয় হিসেবে পৌণে এক কিলোমিটার দৈর্ঘ্য বিশিষ্ট কুশিয়ারা নদীর উপর রাণীগঞ্জ সেতু নির্মাণ কাজ শুরু হয়। সেতুর নির্মাণ কাজ পায় ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠান (এমবিইএলই)। এরপর থেকে দ্রুত চলে নির্মাণ কাজ। মাত্র ২ বছরের মাথায় সেতুর ৭৫ ভাগ কাজ শেষ হয়ে যায়। বাকি ২৫ ভাগ কাজ আগামী ১০ মাসের মধ্যে শেষ হয়ে যাবে।
৭ সেপ্টেম্বর শনিবার সরজমিনে দেখা যায়, রাণীগঞ্জ সেতুর নির্মাণ কাজ চলছে। ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠানের সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তারা তদারকি করছেন। এ সময় ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠানের ডিপিএম বিজন কৃষ্ণ বাড়ই ও এলটি জিল্লুর রহমান বলেন, আমরা চাই দ্রুত সেতুটির কাজ সম্পন্ন করতে। যে কারণে লোকবল সংখ্যা বাড়ানো হয়েছে। প্রতিদিন কমপক্ষে শতাধিক লোক কাজ করছেন। এক প্রশ্নের জবাবে তারা বলেন, এ পর্যন্ত সেতুর ৭৫ ভাগ কাজ শেষ হয়েছে। তারা আশাবাদ ব্যক্ত বলেন, আগামী ১০ মাসের মধ্যে বাকি কাজ শেষ হয়ে যাবে। এ সময় রাণীগঞ্জ বাজারের ব্যবসায়ী ধনেশ চন্দ্র রায়, আবুল কাশেম সহ স্থানীয়রা সন্তোশ প্রকাশ করে বলেন আমরা চাই আরো দ্রুত সেতুর কাজ সম্পন্ন হোক। এ জন্য সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের প্রতি আহবান জানাচ্ছি।