ট্রাক চাপায় স্কুল ছাত্রীর মৃত্যু তেঁতুলিয়ায় ট্রাক পোড়ানোয় ২৭ জনের বিরুদ্ধে থানায় মামলা, ১জন গ্রেফতার

প্রকাশিত

তেঁতুলিয়া (পঞ্চগড়) প্রতিনিধি – তেঁতুলিয়ায় ট্রাক চাপায় শিক্ষার্থীর মৃত্যুর ঘটনায় ট্রাক পোড়ানোর ঘটনায় প্রধান শিক্ষকসহ ২৭ জনের বিরুদ্ধে মামলায় একজনকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। গত রোববার রাতে মামলার তদন্তকারি কর্মকর্তা শাহাদত হোসেনের নেতৃত্বে পুলিশ উপজেলার যোগীগছ গ্রামের বাবুল হোসেনকে (২৫) আটক করে। এর আগে ট্রাকটির মালিক আলমগীর মন্টু বাদী হয়ে শালবাহান বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক (ভার) মো. আবু জাফরকে প্রধান করে ২৭ জনের নাম উল্লেখ করে আরো ৭০-৮০ জনকে অজ্ঞাত আসামী করে ৭ সেপ্টেবর শনিবার রাতে মডেল থানায় নাশকতার অভিযোগে একটি মামলা দায়ের করে। এ মামলায় অভিযুক্ত আসামিরা পলাতক থাকলেও এলাকায় সাধারন মানুষের মধ্যে চলছে অজ্ঞাতনামা গ্রেফতার আতংক। অন্যদিকে সাদিয়া মৃত্যুতে বইছে শোকের ছায়া।
জানা যায়, ৬ সেপ্টেবর শুক্রবার দুপুরে উপজেলার শালবাহান বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ের নবম শ্রেণীর ছাত্রী যোগীগছ গ্রামের ইসরাফিল ইসলামের মেয়ে সাদিয়া আক্তার ট্রাক চাপায় মর্মান্তিকভাবে প্রাণ হারায়। এ ঘটনায় এলাকাবাসী ট্রাক এবং চালককে আটক করলে বিক্ষুদ্ধ জনতা ক্ষিপ্ত হয়ে ট্রাকটিতে আগুন লাগিয়ে দেয়। তবে এখন পযর্ন্ত নিহত সাদিয়া পরিবারের খোজখবর রাখছে না কেউ বলে জানা গেছে।
এ ব্যাপারে আজ সোমবার বিকেলে মডেল থানার অফিসার ইনচার্জ জহুরুল ইসলাম বলেন, ট্রাক পোড়ানোর মামলায় বাবুল হোসেন নামের একজনকে আটক করা হয়েছে। বাকী আসামীদের গ্রেফতারের অভিযান অব্যহত রয়েছে। দোষী ব্যক্তিদের দ্রুত গ্রেফতার করে আইনের আওতায় আনা হবে।