ধর্মীয় চেতনায় হতে পারে পাহাড়ের শান্তি- জোন কমান্ডার লে: ক: আদনান কবির।

প্রকাশিত

খাগড়াছড়ি জেলা প্রতিনিধি-
০৮-১১-২০১৯ইং তারিখ শুক্রবার খাগড়াছড়ি জেলার দীঘিনালা উপজেলা সদরে দীঘিনালা বন বিহারে ”২১তম কঠিন চিবর দান” অনুষ্ঠানে প্রধান অথিতির বক্ত্যবে জোন কমানাডার লেপ্টেনেন্ট কর্নেল আদনান কবির পিপিএম বার পিএসসি বলেন আমি যতদিন থাকি এলাকার শান্তি বজায় রেখে পাহাড়ী বাঙ্গালীর সু সম্পর্ক রাখার আপ্রান চেষ্টা থাকবে।
অনুষ্ঠানে ধর্মীয় গুরু শ্রীমৎ নন্দপাল মহাস্থবির ছিলেন প্রধান আকর্ষণ। পার্বত্য চট্টগ্রামে তথা বৌদ্ধ ধর্মীয় দেশ সমূহে শ্রদ্ধাভাজন এবং প্রিয় ধর্মীয় গুরু পরম পুজ্য বন ভান্তের প্রধান শিষ্য তিনি। র্আও উপস্থিত ছিলেন খাগড়াছড়ি পার্বত্য জেলা পরিষদের মহিলা সদস্য শতরুপা চাকমা, সদর উপজেলাধীন বিভিন্ন ইউনিয়ন পরিষদের জন প্রতিনিধিগন, বিভিন্ন বিহারের সুদক্ষ ভান্তেগন, ধর্মপ্রান শাান্তিকামী এলাকার হাজারো পূন্যার্থীবৃন্দ।
অনুষ্ঠানের শুরুতে ধর্মীয় সংগীত শিল্পী রুবেল চাকমা গানের মধ্য দিয়ে সারাদিনের দিতীয় পর্ব শুরু হয়। উপস্থিত প্রধান আকর্ষন ধর্মীয় গুরু নন্দপাল মহাস্থবিরকে ফুলের তোড়া এবং ক্রেস্ট দিয়ে বরন করা হয়। তারপর প্রধান অথিতি জোন কমান্ডার আদনান কবির মহোদয়কে এবং থাইল্যান্ড থেকে আগত চারজন উপাসিকাদের ধর্মীয়ভাব গম্ভীর্যে বরন করা হয়।
অনুষ্ঠানে প্রধান অথিতি ছাড়্ওা বক্তব্য রাখেন খাগড়াছড়ি পার্বত্য জেলা পরিষদের মহিলা সদস্য শতরুপা চাকমা, থাইল্যান্ড প্রবাসী আতœদীপ মহাস্থবির ভান্তেসহ গন্যমান্য ব্যক্তিবর্গ। প্রাঞ্জল শ্রদ্ধাঞ্জলী পাঠ করে প্রকাশি চাকমা এবং সুন্দর উপস্থাপনায় সারাদিনের অনুষ্ঠান মুগ্ধ করে রাখেন ত্রিদিব দ্ওেয়ান।