আনসার আল ইসলামের সামরিক কমান্ডার সাদমানের রিমান্ড মঞ্জুর!

প্রকাশিত

নারায়ণগঞ্জ প্রতিবেদক: আনসার আল ইসলামের সামরিক শাখার এক কমান্ডারের ১০ দিনের রিমান্ড চেয়ে আদালতে পাঠালে আদালত ৭ দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেছে।

রোববার বিকেলে নারায়ণগঞ্জ সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আহমেদ হুমায়ুনের আদালতে হাজির করলে শুনানি শেষে আদালত এই জঙ্গির ৭ দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেন। আটক জঙ্গি সদস্যের নাম সাদমান রাহিক ওরফে জাবির।

র‌্যাব-১১ এর সিনিয়র সহকারী পরিচালক আলেপ উদ্দিন জানান, রাজধানীর টিকাটুলী থেকে নিষিদ্ধ জঙ্গি সংগঠন আনসার আল ইসলামের সামরিক শাখার কমান্ডার সাদমান রাহিক ওরফে জাবিরকে গ্রেপ্তার করেছে র‌্যাব-১১। রোববার ভোরে প্যারামাউন্ট কনকর্ড-এর ১১৮ নম্বর ফ্ল্যাট থেকে তাকে গ্রেপ্তার করা হয়। তার বিরুদ্ধে নারায়ণগঞ্জের আড়াইহাজার থানায় নাশকতা ও জঙ্গি তৎপরতার অভিযোগে মামলা রয়েছে।

সাদমান রাহিক ওরফে জাবির ২০১০ সাল থেকে জঙ্গি মতাদর্শে উদ্বুদ্ধ হয়। ২০১৪ সাল থেকে সে জঙ্গি সংগঠন আনসার আল ইসলামের সামরিক শাখার মাসুল বা কমান্ডার হিসেবে দায়িত্ব পালন করে আসছে। পাশাপশি বিভিন্ন স্থানে আত্মগোপনে থেকে সদস্য সংগ্রহের কাজও করছিল। বর্তমানে তার দুই শিক্ষাগুরু রাজধানীর ধানমন্ডি এলাকার জুন্নুন শিকদার সিরিয়ায় এবং ব্যুয়েটের ছাত্র আবু তাহের সুমন আফগানিস্তানে যুদ্ধে অংশগ্রহণ করছে। মূলত এই দুজনের কাছ থেকেই সে সামরিক বিষয়ে সব ধরনের প্রশিক্ষণ নিয়েছিল।

তিনি আরো জানান, সাদমান রাহিক চুয়াডাঙ্গা জেলার আলমডাঙ্গা থানার হাটহাজারী গ্রামের আবদুস সোবহানের একমাত্র সন্তান। বাবা-মায়ের সঙ্গে দীর্ঘদিন যাবত সে রাজধানীর ওয়ারী থানার টিকাটুলী এলাকায় প্যারামাউন্ট কনকর্ডের ওই ফ্ল্যাটে বসবাস করছে। জঙ্গিবাদের সঙ্গে যুক্ত হওয়ার পর থেকে বেশির ভাগ সময়ই বিভিন্ন জেলায় গিয়ে বসবাস এবং সেখান থেকেই জঙ্গি তৎপরতার দায়িত্ব পালন করত।