কমিউনিটি ক্লিনিক ট্রাস্ট আইন চূড়ান্ত করতে কমিটি

প্রকাশিত

জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক: কমিউনিটি ক্লিনিক স্বাস্থ্য সহায়তা ট্রাস্ট গঠনের লক্ষ্যে আইন চূড়ান্ত করতে চার সদস্যের একটি কমিটি করেছে স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়। স্বাস্থ্যসেবা বিভাগের সচিব মো. সিরাজুল হক খানকে এ কমিটির প্রধান করা হয়েছে।

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নির্দেশে মঙ্গলবার এ কমিটি গঠন করেন স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণমন্ত্রী মোহাম্মদ নাসিম। ১৫ দিনের মধ্যে আইনটির খসড়া বিশ্লেষণ করে তা চূড়ান্ত করার নির্দেশ দেন তিনি।

এই কমিটিতে স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের মহাপরিচালক, কমিউনিটি ক্লিনিক প্রকল্পের পরিচালক সদস্য হিসেবে থাকবেন। প্রধানমন্ত্রীর প্রাক্তন উপদেষ্টা অধ্যাপক ডা. মোদাচ্ছের আলী কমিটির উপদেষ্টা হিসেবে দায়িত্ব পালন করবেন।

কমিউনিটি ক্লিনিক স্বাস্থ্য সহায়তা ট্রাস্ট আইনের খসড়া নিয়ে সচিবালয়ে অনুষ্ঠিত পর্যালোচনা সভায় এসব সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়। বৈঠকে সভাপতিত্ব করেন স্বাস্থ্যমন্ত্রী মোহাম্মদ নাসিম।

বৈঠকে প্রধানমন্ত্রীর প্রাক্তন উপদেষ্টা অধ্যাপক ডা. মোদাচ্ছের আলী, স্বাস্থ্যসেবা বিভাগের সচিব মো. সিরাজুল হক খান, স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের মহাপরিচালক অধ্যাপক ডা. আবুল কালাম আজাদ, কমিউনিটি বেজড হেলথ কেয়ার অপারেশনাল প্ল্যান ক্লিনিক প্রকল্পের পরিচালক অধ্যাপক ডা. আবুল হাশেম খানসহ মন্ত্রণালয় ও অধিদপ্তরের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।

সভায় জানানো হয়, নতুন এই আইনের ক্ষমতাবলে ট্রাস্টের অধীনে কর্মচারীদের চাকরি স্থায়ীকরণ, বেতন বৃদ্ধি, পদোন্নতি, অবসরভাতাসহ অন্যান্য সুযোগ-সুবিধা সরকারি চাকরির ন্যায় বলবৎ হবে।