গাজীপুরে তিন ভূয়া ডিবি পুলিশ আটক, ওয়াকিটকি হ্যান্ডকাপ উদ্ধার

প্রকাশিত

তুহিন সারোয়ার-

গাজীপুরে তিন ভূয়া ডিবি পুলিশকে আটক করেছে বাসন থানা পুলিশ। রবিবার দুপুরে গাজীপুর সিটি কর্পোরেশনের চান্দনা চৌরাস্তার শাহজালাল ইসলামী ব্যাংকের সামনে থেকে তাদের আটক করা হয়। আটককৃতদের কাছ থেকে দুটি খেলনা পিস্তল, একটি ওয়াকিটকি ও একটি হ্যান্ডকাপ উদ্ধার করা হয়েছে। আটককৃতরা হলো, শরিয়তপুরের ডামুড্ডা থানার পূর্বকান্দি গ্রামের মৃত সামাদ মাষ্টারের ছেলে জহিরুল ইসলাম (৪৩), একই জেলার বেদেরগঞ্জ থানার কুটিজুলি গ্রামের আব্দুল মজিদ হাওলাদারের ছেলে মাহবুব আলম (৩৮) ও গোসাইরহাট থানার শিবপুর গ্রামের আবুল বাশার কাজীর ছেলে মোঃ লিকন (৩২)। তারা ঢাকার সায়েদাবাদ, সবুজবাগ ও মীরহাজারীবাগ এলাকায় থাকে। জিএমপি’র বাসন থানার ওসি মোক্তার হোসেন জানান, রবিবার দুপুরে একটি চক্র ভূয়া ডিবি পুলিশ সেজে গাজীপুর সিটি কর্পোরেশনের চান্দনা চৌরাস্তার শাহজালাল ইসলামী ব্যাংকের সামনে ঢাকা-ময়মনসিংহ মহাসড়কের পাশে একটি মাইক্রোবাস নিয়ে অবস্থান নেয়। এ গোপন সংবাদ পেয়ে পুলিশের একটি দল সাদা পোশাকে সেখানে অভিযান চালায়। এ সময় পুলিশের উপস্থিতি টের পেয়ে ভূয়া ডিবি পুলিশের সদস্যরা পালিয়ে যেতে থাকে। পুলিশ তাদের ধাওয়া করে তিনজনকে আটক করলেও অন্যরা পালিয়ে যায়। পুলিশের ওই কর্মকর্তা আরো জানান, প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে আটককৃতরা জানিয়েছে গ্রাহকরা ব্যাংক থেকে টাকা উত্তোলন করার পর ডিবি পুলিশ পরিচয়ে তারা তল্লাশীর নামে ওই গ্রাহকের কাছ থেকে টাকা ছিনিয়ে নিত। কখনো মাইক্রোবাসে উঠিয়ে নিয়ে গ্রাহকের টাকা পয়সা লুট করে আহতাবস্থায় বিভিন্নস্থানে ফেলে যেতো।