গাজীপুর মহাসড়ক ময়লার ভাগার ফুটপাত ময়লার স্তুপ, ১ম পর্ব

প্রকাশিত
উল্লেখ্য, গাজীপুর সিটি করপোরেশনের নির্বাচিত মেয়র অধ্যাপক এম এ মান্নান দীর্ঘদিন ধরে কারাবন্দি। তাকে বরখাস্ত করার পর সেখানে গাজীপুর সিটি করপোরেশনের ভারপ্রাপ্ত মেয়র হিসেবে আসাদুর রহমান খান কিরন দায়িত্বপালন করছেন। মেয়র সংক্রান্ত জটিলতায় এইসব সমস্যা সমাধান হচ্ছেনা বলে উক্ত এলাকার জনগন মনে করে।গাজীপুর সিটি কর্পোরেশন এ যেসব এলাকায় এখানে সেখানে ময়লা আবর্জনা ফেলা হয় তেমন উল্লেখযোগ্য কয়েকটির তালিকা:
১। টংগী ব্রীজ এর নিচে ময়লা ভাগার যেন :

এতো মহাসড়ক নয় যেন ময়লার ভাগার। টঙ্গী বাজার ওভার ব্রিজের নিচে মহাসড়ক ঘেষে ময়লার স্তুপ। পাসেই বাস স্ট্যান্ড। যাত্রিরা সেখানে উঠা নামা করে। বাস থামতেই নাকে এসে লাগে বোটকা গন্ধ। গাজীপুর সিটি কর্পোরেশনের টঙ্গী জোনের আবাসিক এলাকা ও বাজারের ময়লা আবর্জনা ফেলার নিজস্ব কোন ডাম্পিং পয়েন্ট না থাকার কারণে সড়কের পাশে ওভার ব্রিজের নিচটাই ব্যবহার করছে সিটি কর্পোরেশনের কর্মীরা। এভাবে ময়লা ফেলার কারণে একদিকে যেমন বাতাসে দুর্গন্ধ ছড়িয়ে পরিবেশের ভারসাম্য নষ্ট করছে অন্যদিকে সড়ক মহাসড়ক দিয়ে চলাচলরত পথচারী ও বিভিন্ন যানবাহনের যাত্রীরা চরম ভোগান্তির শিকার হচ্ছে। সিটি কর্পোরেশন হবার আগ থেকেই এ জায়গাটিতেই এভাবে ময়লা আবজর্না ফেলা হয়ে আসছে। টঙ্গী বাজার এর একজন ব্যবসায়ী বলেন, সিটির লোকজন টঙ্গী বাজার বাসষ্ট্যান্ড ফুটওভার ব্রিজের নিচে ময়লা ফেলার কারণে এখানকার ব্যবসায়ী, পথচারী ও যাত্রীরা ভোগান্তির শিকার হচ্ছে। সবাই ভেবেছিল সিটি কর্পোরেশন হওয়ার পর এই দূর্ভোগ থেকে মুক্তি পাওয়া যাবে কিন্তু বিধি বাম। যেই লাউ সেই কদু। কর্পোরেশনের নাগের ডগা দিয়ে ময়লা ফেলা হচ্ছে অথচ কোনো হেলদুল নেই।

ঢাকা-টাঙ্গাইল মহাসড়ক এর উপর ময়লার স্তুপ : গাজীপুর সিটি কর্পোরেশনের কালিয়াকৈর জোনের এ্যাপেক্স ফুট ওয়্যারের গেটের পশ্চিম পাশে ঢাকা-টাঙ্গাইল মহাসড়কের উভয় পাশে, একই মহাসড়কের জোড়াপাম্পের পশ্চিম পাশে ও কালিয়াকৈর-নবীনগর মহাসড়কের বাড়ইপাড়া বাসস্ট্যান্ডের উত্তর পাশে আবাসিক এলাকার ময়লা আবর্জনা প্রকাশ্যেই ফেলা হচ্ছে। এসব স্থান দিয়ে পথচারীরা নাকে রুমাল চেপে চলাফেরা করে।

গাজীপুর চৌরাস্তা সড়কের পাসে ময়লার স্তুপ। রাস্তা ব্লক করে ময়লা ফালানোয় যানযট লেগে যায়। গাজীপুর চৌরাস্তা একটি গুরুত্ব পূর্ন স্থান । কোন কারণে দীর্ঘ যানজটের সৃষ্টি হলে তার প্রভাব পড়ে দেশের যোগাযোগ ব্যবস্থায়। গাজীপুরের চৌরাস্তাতে ময়লার পাহার থাকায় সৃষ্টি হচ্ছে ভয়াবহ যানজট, এর মূলে সিটি কর্পোরেশনের দায়িত্বহীনতা কে দায়ি করছে স্থানয়িরা।

কলেজ গেইট শফিউদ্দিন কলেজে মেইন রাস্তার পাশে ভাংগা চোড়া টিন দিয়ে কোনরকম ভাবে একটা ডাম্পিং পয়েন্ট করা হয়েছে। এতে ময়লা আবর্জনা রাস্তায় ছড়িয়ে পড়ছে। জনগন নাক চেপে বহুকষ্টে যাতায়ত করছে। ময়লায় রাস্তা দখল করায় পথচারীদের হাটাচলায় জটিলতা হচ্ছে। সবচেয়ে বড় কথা এখানে কোন ফুট ওভার ব্রিজ নেই। ফলে রাস্তা পারপার হতে গিয়ে ময়লায় পিছলে প্রায়ই দূর্ঘটান ঘটছে। ময়ালার জায়গাটি সেখান থেকে সরিয়ে সে বরাবর একটি ফুট ওভার ব্রিজ দেওয়া দরকার বলে এলাকার লোকজন মনে করেন।
কলেজ গেইট থেকে একটু সামনে পূর্ব দিকে শিশু শোধনাগার ঘেষে রাস্তার উপর কাঁচা বাজার এর সকল ময়লা ফেলা হয়।
চেরাগ আলী বাজার এর মুরগীর যাবতয়ি বর্জ রাস্তার উপর ফুটপাতে ফেলা হয়। ফলে দূগন্ধে সেখানে টেকা দায়।

বিস্তারিত ২য় পর্বে…