নড়াইলের এসপি সাহেবের গোপন সংবাদের ভিত্তিতে পৃথক দু’টি সফল অভিযানে ইয়াবা ও মানব পাচারকারীসহ গ্রেফতার ৬

প্রকাশিত

নড়াইল প্রতিনিধি:-নড়াইলের পুলিশ সুপারের সফল ইয়াবা ও মানব পাচারকা বিরোধী অভিযান একাধিক মানব পাচার মামলার আসামি নড়াইলের চুনখোলা গ্রামের লতিফ শেখের ছেলে লিটন শেখকে গ্রেফতার করে ও মাদক বিরোধী সাঁড়াশি অভিযান চালিয়ে ৫জন মাদক ব্যবসায়ীকে গ্রেফতার করেছে নড়াইল জেলা গোয়েন্দা (ডিবি) পুলিশ। এ সময় তাদের কাছ থেকে ১৫০ পিস ইয়াবা ট্যাবলেট উদ্ধার করে ডিবি পুলিশ। ডিবি পুলিশ সুত্রে জানা গেছে, নড়াইলের পুলিশ সুপার (এসপি) মোহাম্মাদ জসিম উদ্দিন (পিপিএম) বার, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে এসআই খাইরুল আলমের নেতৃত্বে সংগীয় এসআই তাহিদুর রহমান, এএসআই সোহেল রানা, এএসআই আনিসুজ্জামান কনস্টেবল নারায়ন চন্দ্র সরকার, রুহুল আমিন, মোহন কুন্ডু, সরোয়ার রহমান ও রাজু ঢালি, আমাদের নড়াইল জেলা প্রতিনিধি উজ্জ্বল রায় জানান, নড়াইলের লোহাগড়ায় উপজেলার কাশিপুর ও নড়াইলের লোহাগড়ায় ইতনা ইউনিয়নে পৃথক দু’টি অভিযান চালিয়ে জেলার চিহ্নিত পাঁচজন মাদক ব্যাবসায়ীকে ১’শ ৫০পিচ ইয়াবা ট্যাবলেটসহ আটক করেন। আটককৃতরা হলেন নড়াইলের লোহাগড়ায় উপজেলার ইতনা ইউনিয়নের ইতনা পূর্ব পাড়ার আবু গাজীর ছেলে নান্নু গাজী, দক্ষিন পাড়ার তবিবুর রহমানের ছেলে সজিব শেখ,সরদার ইয়ার হোসেনের ছেলে সেতাউর রহমান সেতা, অমর কাঞ্জি লালের ছেলে জগদিশ কাঞ্জি লাল ও নড়াইল সদর উপজেলার বরাশুর গ্রামের সাইফুর রহমানের ছেলে তহিদুর রহমান সুজন। এ ব্যাপারে নড়াইলের পুলিশ সুপার মোহাম্মাদ জসিম উদ্দিন (পিপিএম) বার, বিষয়টি নিশ্চিত করে, আমাদের নড়াইল জেলা প্রতিনিধি জানানকে, নড়াইলের একাধিক মানব পাচার মামলার আসামি নড়াইলের চুনখোলা গ্রামের লতিফ শেখের ছেলে লিটন শেখকে গ্রেফতার করে। পুলিশ সুপার আরো বলেন পুলিশের কাজে বাঁধা আসবেই। তাই বলে কাউকে থেমে থাকলে চলবে না। সকলকে সব বাঁধা-বিপত্তি অতিক্রম করে অপ্রতিরোধ্য গতিতে এগিয়ে যেতে হবে। নড়াইল থেকে মাদক মুক্ত করার লক্ষ্যে পুলিশ কাজ করে যাচ্ছে। যতদিন নড়াইল জেলা মাদক মুক্ত না হবে ততদিন এ অভিযান অব্যাহত থাকবে। এছাড়াও ইয়াবা ও গাজা, জঙ্গি ও সন্ত্রাসমুক্ত নড়াইল গড়ার প্রত্যয়ে সকলকে একযোগে কাজ করার আহ্বান জানিয়ে পুলিশ সুপার তাঁর বক্তব্য সমাপ্ত করেন। এছাড়াও অভিযান চালিয়ে ২৩৪ ফেন্সিডিলসহ ৩ জনকে গ্রেফতার করেছে থানা পুলিশ মহিষা পাড়া মদিনা পাড়ার মাদক আব্দুল্লাহ্ আল মামুন (৩৫),স্ত্রী লীমা বেগম ও সহযোগী আজগার আলী (৪০)কে মদিনা পাড়ার নিজ ঘরে তল্লাসী করে ভারতীয় ২৩৪ বোতল ফেন্সিডিলসহ ৩ জনকে গ্রেফতার করেছে থানা পুলিশ। এছাড়াও তিনি জানান, মাদকবিরোধী অভিযানের অংশ হিসেবে মঙ্গলপুর গ্রামে আমিনুরের বাড়ির রাস্তার ওপর থেকে ৭০০ পিস ইয়াবাসহ রাত সাড়ে ১১ টার সময় ডিবি পুলিশ তাকে আটক করে। অভিযান দুর্বার গতিতে এগিয়ে ডিবি ও থানা পুলিশের অভিযানে ইয়াবা ও গাজা ব্যবসীয়দের গ্রেফতার নড়াইলের চাঁচুড়ী বাজার এলাকা থেকে গোপন সংবাদের ভিত্তিতে ডিবি পুলিশের এসআই সৈায়দ জামারত আলীর নেতৃত্বে সংগীয় ডিবি পুলিশের সদস্যদের নিয়ে চাচুড়ী বাজার এলাকা অভিযান চালিয়ে দুইজন ইয়াবা ব্যবসায়ী শামসুল হক মোল্লার ছেলে মোহাম্মদ শাহিন মোল্লা (২৫)কে ৫০ পিস ইয়াবাসহ গ্রেফতার করে। পুলিশ সুপার আরো বলেন পুলিশের কাজে বাঁধা আসবেই। তাই বলে কাউকে থেমে থাকলে চলবে না। সকলকে সব বাঁধা-বিপত্তি অতিক্রম করে অপ্রতিরোধ্য গতিতে এগিয়ে যেতে হবে।