পটুয়াখালীতে পূর্ব শত্রুতার জেরে যুবককে কুপিয়ে হত্যা

প্রকাশিত

সাইদ ইব্রাহিম,পটুয়াখালী-

পটুয়াখালীর দশমিনা উপজেলায় পূর্ব শত্রুতার জমিজমা সংক্রান্ত্রের মামলার জেরধরে রাকিব হোসেন (২৭) নামে এক যুবককে কুপিয়ে হত্যা করা হয়েছে। এ ঘটনায় তার ভাবি সুরমা বেগমকে উন্নত চিকিৎসার জন্য বরিশাল শেরে-বাংলা মেডিকেল কলেজ পাঠান হয়েছে। এ ঘটনায় তার ভাবি সুরমা নিহতের শিশু পুত্র জিসানকেও কুপিয়ে গুরুতর আহত করেছে। ঘটনাটি ঘটেছে বুধবার রাত সারে ৯টার দিকে । দশমিনা উপজেলার বেতাগী সাকিপুর ইইনিয়নের বেতাগী গ্রামে। এই ঘটনায় পুলিশ শিরিন এবং নুপুরকে আটক করেছে।
নিহত রাকিবের পরিবার জানায়, ওই গ্রামের আব্দুল রব ডাক্তারের সাথে নিহত রাকিব হোসেনের জমিজমা সংক্রান্ত পূর্বশত্রুতা অনেকদিন যাবত চলে আসছিল। ঘটনার রাতে আব্দুল রব ডাক্তার তার ছেলে সোহাগ ও দুই মেয়ে যথাক্রমে শিরিন এবং নুপুর মিলে রাকিব হোসেনকে তার বাড়ির সামনে উঠানে ধারালো দা দিয়ে এলোপাথাড়ি কোপাতে থাকে। এসময় রাকিবের দেড় বছরের শিশু পুত্র সেজানকে কোলে নিয়ে তার ভাইয়ের স্ত্রী সুরমা বেগম এগিয়ে আসলে সুরমা ও কোলের শিশুপুত্রের ওপর তারা হামলা চালায়।
তাদের ডাকচিৎকারে আশেপাশের লোকজন ছুটে আসলে হামলাকারীরা পালিয়ে যায়। এর পর এলাকাবাসি শিশুটি সহ গুরুতর আহত দেবর ভাবীকে উদ্ধার করে দশমিনা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে গেলে হাসপাতালে থাকা কর্তব্যরত চিকৎসক রাকিবকেমৃত ঘোষনা করেন।
দশমিনা হাসপাতালের মেডিকেল অফিসার মোস্তাঢিজুর রহমান বলেন, রাকিবকে হাসপাতালে নিয়ে আসার আগেই সে মারা গেছে। এছাড়া তার ভাবী সুরমা বেগমের স্তন কেটে যাওয়াসহ শরীরে মারাত্বক ভাবে ধারালো অস্ত্রের আঘাত রয়েছে বলে চিকিৎসক জানায়। শিশুটিও জখম হয়েছে। তাদের উন্নত চিকিৎসার জন্য বরিশাল শেরে-বাংলা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নেওয়ার পরামর্শ দেয়া হয়েছে।
দশমিনা থানার অফিসার্স ইনচার্য রতন কুমান রায় এই হাত্যাকান্ডের সত্যতা স্বীকার করে বলেন, লাশ উদ্ধার করে পটুয়াখালী মর্গে আজ সকালে পাঠানো হয়েছে। এ ঘটনায় একটি হত্যা মামলা দায়ের করেছে নিহত রাকিবের পিতা সত্তার মাওলানা। সেই সাথে সাথে এই হত্যাকান্ডের সাথে যারা জরিত রয়েছে তাদেরকে গ্রেফতারের জন্য পুলিশ কাল রাত থেকে অভিযান চালিয়ে যাচ্ছে বলে পুলিশের এই কর্মকর্তা জানায়।