পলাশে দুই গরুসহ চোরচক্রের ০৬ সদস্য আটক

প্রকাশিত

বিশেষ প্রতিবেদনঃ পলাশে দুই গরুসহ চোরচক্রের ০৬ সদস্যকে আটক করা হয়েছে। গরু চুরির ঠেকাতে নরসিংদীর পুলিশ সুপার সাইফুল্লা আল মামুনের বিশেষ তদারগিতে পলাশ ও শিবপুর থানা পুলিশ বিষয়টি আমলে নেয়।

যার প্রতিফলন হিসেবে গত ১২ সেপ্টেস্বর বুধবার পলাশ উপজেলার চলনা গ্রামের আসাদ মিয়ার বাড়ির গোয়াল ঘর থেকে রাতের অন্ধকারে গরু নিয়ে পালিয়ে যাবার সময় পার্শ্বত্বী শিবপুর উপজেলার কালুয়ার কান্দা এলাকা থেকে শিবপুর থানা পুলিশ দুইটি ষাড় গরুসহ এক জন গরু চোরকে হাতে নাথে আটক করে।

পরের দিন ১৩ সেপ্টেম্বর বৃহস্পতিবার পলাশ থানা পুলিশ বিষয়টি জানতে পেরে শিবপুর থানা থেকে গরুসহ চোরকে আটক করে পলাশ থানায় নিয়ে আসে। পরে তাকে প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে তার সঙ্গে থাকা বাকি ৫ জন গরু চোরের নাম প্রকাশ করে। পরে পলাশ থানা পুলিশ জেলার বিভিন্ন প্রান্ত থেকে গরু চোরের বাকি ৫ জন সদস্যকে আটক করে।

আটককৃতরা হলেন-নরসিংদী সদর উপজেলার টুকু মিয়ার ছেলে রুবেল (২০),শিবপুর উপজেলার সাধারচর গ্রামের গিয়াস উদ্দিন মিয়ার ছেলে মাসুদ(৩০), শিলমান্দী ভূঁইয়ার মোড় এলাকার আবুল হোসেন এর ছেলে শাহালম (৩২), শিবপুর উপজেলার বিলসরণ গ্রামের মৃত ফালুখাঁর ছেলে আসাদ খাঁ,রায়পুরা উপজেলার গকুল নগর ইউপির মৃত লাল মিয়ার ছেলে কালাম (৪২),শিবপুর উপজেলার দক্ষিণ কারাচর গ্রামের আলম মিয়ার ছেলে সুজন (২৫)।

পলাশ থানা সূত্রে জানা যায় ,গরুচোরের এই চক্রটি দীর্ঘ দিন যাবৎ জেলার বিভিন্ন উপজেলা থেকে রাতের অন্ধকারে কৃষকদের গোয়াল ঘর থেকে গুরু চুরি করে আসছিল।

এ ব্যাপারে পলাশ থানার ওসি মকবুল হোসেন জানান, আটককৃত ছয় জনের বিরুদ্ধে ৪৫৭/৩৮০/ ৪১১ এর পেনাল কোট-১৮৬০ : ধারায় পলাশ থানায় মামলা হয়েছে।