“প্রধানমন্ত্রীর সহায়তার তালিকায় অনিয়ম” শরনখোলায় ইউপি সদস্য শোকজ!

প্রকাশিত

 

শরণখোলা (বাগেরহাট) প্রতিনিধিঃ
বাগেরহাটের শরনখোলায় প্রধানমন্ত্রী ঘোষিত মানবিক সহায়তার তালিকায় উপকারভোগীর নামের পাশে নিজের ব্যক্তিগত মোবাইল নম্বর দেওয়া ইউপি সদস্যকে শোকজ করা হয়েছে। গত শুক্র ও শনিবার বিভিন্ন পত্রিকায় রির্পোট প্রকাশের পর ১৬মে (শনিবার) সকালে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা স্বাক্ষরিত এক নোটিশে ইউপি সদস্যকে রাকিব হাসানকে শোকজ দেওয়া হয়।
এছাড়া উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার কার্য্যালয়ে জনপ্রতিনিধিদের জমা করা তালিকায় অনিয়ম থাকায় উপজেলার চারটি ইউনিয়নের চার হাজার সুবিধাভোগীর নাম সংশোধন করে নুতন তালিকা তৈরী করা হয়েছে।
খোঁজ নিয়ে জানা যায়, উপজেলার ২নং খোন্তাকাটা ইউনিয়নের ২নং ওয়ার্ডের ইউপি সদস্য মোঃ রাকিব হাসান মানবিক সহায়তার ওই তালিকায় ৪০জন সুবিধাভোগীর নামের পাশে তার নিজের মোবাইল নম্বরটি জুড়ে দেন। মোবাইল ব্যাংকিংয়ের মাধ্যমে টাকা প্রদানের নিয়ম থাকায় তিনি গরীবের টাকার প্রতি লুলোপ দৃষ্টি দেয়ার কারনে উপজেলা প্রশাসন প্রাথমিক ভাবে তাকে কারণ দর্শানোর নোটিশ প্রদান করেন।
এ ব্যাপারে ইউপি সদস্য মোঃ রাকিব হাসান মুঠোফোনে বলেন, উপজেলা থেকে মানবিক সহায়তার তালিকা তৈরির নির্দেশনা পেয়ে তিনি উপকারভোগীর নাম এবং মোবাইল নম্বর সঠিক ভাবে ১০০টি ফরম ইউনিয়ন পরিষদে জমা দেন। কিন্তু চক্রান্ত করে পরিষদ থেকেই কম্পিউটার কম্পোজ করার সময় ৪০জন উপকারভোগীর মোবাইল নম্বরের স্থলে তার নিজের ব্যবহৃত মোবাইল নম্বরটি বসিয়ে দিয়ে তাকে ফাঁসানো হয়েছে। এখানে তার কোন খারাপ উদ্দেশ্য নেই।
শরণখোলা উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) সরদার মোস্তফা শাহিন জানান, ইউনিয়ন পরিষদের মাধ্যমে সুবিধাভোগীদের নামের যে তালিকা এসেছে তাতে বেশ কয়েকজন মেম্বরের মোবাইল নম্বর এভাবে একাধিক নামের পাশে সংযুক্ত করা ছিল। জনপ্রতিনিধিদের জমা হওয়া তালিকা সংশোধন করতে গিয়ে তিন শতাধিক নাম ও মোবাইল নম্বর নুতন করে সংশোধন করা হয়েছে। স্থানীয় সরকারের ইউনিয়ন পরিষদ আইনে ইউপি সদস্য রকিব হাসানকে কারণ দর্শানো নোটিশ দেয়া হয়েছে। আগামী ৭ কার্য দিবসের মধ্যেসন্তোষ জনক জবাব না পেলে তার বিরুদ্ধে বিধিগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে ।