বিয়ের প্রলোভনে প্রেমিকাকে ধর্ষণের অভিযোগে প্রেমিক গ্রেফতার

প্রকাশিত

 

মাসুদ রেজা ফিরোজী ,নিজস্ব প্রতিবেদক –
সুনামগঞ্জের ছাতকে বিয়ের প্রলোভন দেখিয়ে প্রেমিকাকে ডেকে নিয়ে ধর্ষণ করার অভিযোগ রুমেল মিয়া (২৮) নামের এক প্রেমিককে গ্রেফতার করা হয়েছে। পুলিশ আটকৃত রুমেলকে শনিবার (৯ জানুয়ারি) দুপুরে জেলহাজতে পাঠিয়েছে। প্রেমিক রুমেল মিয়া জেলার ছাতক উপজেলার দক্ষিণ খুরমা ইউনিয়নের ভূইগাঁও গ্রামের ছাদেক আলীর ছেলে। এঘটনার প্রেক্ষিতে ধর্ষণের শিকার কিশোরীর বাদী হয়ে তার প্রেমিক রুমেল মিয়ার বিরুদ্ধে নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনে একটি মামলা দায়ের করেছেন।
এব্যাপারে এলাকাবাসী ও থানা সূত্রে জানা যায়, উপজেলার কালারুকা ইউনিয়নের নুরুল্লাপুর গ্রামের ধর্ষণের শিকার কিশোরীর সাথে পাশর্^বর্তী দক্ষিণ খুরমা ইউনিয়নের রুমেল মিয়ার সাথে দীর্ঘদিন যাবত প্রেমের সম্পর্ক চলছিল। তারই সূত্র ধরে গত বৃহস্পতিবার রাতে প্রেমিক রুমেল মিয়া ডেকে নিয়ে যায় প্রেমিকাকে তার নিজবাড়িতে এক পর্যায় বিয়ের করার আশ^াস দিয়ে প্রেমিকার সাথে শারীরিক সম্পর্ক করে। এঘটনার পরদিন শুক্রবার সকালে কিশোরীর তার প্রেমিক রুমেল মিয়াকে বিয়ে করার চাপ দিলে সে বিয়ে করতে অস্বীকার করে। পরে তাদের দুজনের এ ঘটনাটি এলাকায় প্রকাশ হওয়ার পর ব্যাপক আলোচনা ও সমালোচনার ঝড় উঠে। পুলিশ খবর পেয়ে প্রেমিকাকে উদ্ধার করে ডাক্তারী পরীক্ষা করার জন্য সিলেট এমএজি ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে ভর্তি করেছে। এঘটনায় ধর্ষণের শিকার কিশোরী প্রেমিকা বাদী হয়ে থানায় একটি মামলা দায়ের করার পর প্রেমিক রুমেল মিয়াকে গতকাল শুক্রবার রাত ১২টার দিকে নিজবাড়ি থেকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।
এব্যাপারে ছাতক থানার উপ-পরিদর্শক দেলোয়ার হোসেন সাংবাদিকদের বলেন, প্রেমিকাকে ধর্ষণের অভিযোগে দায়েরকৃত মামলায় প্রেমিক রুমেল মিয়াকে গ্রেফতার করে ইতোমধ্যে জেলহাজতে পাঠানো হয়েছে।