বুড়িগঙ্গায় লঞ্চডুবি : শিশুসহ ৩০ জনের মরদেহ উদ্ধার

প্রকাশিত

ঢাকার শ্যামবাজার এলাকার বুড়িগঙ্গা নদীতে ঢাকা-মুন্সীগঞ্জ রুটের মর্নিং বার্ড নামের একটি লঞ্চ অর্ধশত যাত্রী নিয়ে ডুবে গেছে। এতে এখন পর্যন্ত তিন শিশুসহ ৩০ জনের মরদেহ উদ্ধার করেছে ফায়ার সার্ভিস। আজ সোমবার সকাল সাড়ে ৯টার দিকে ঢাকা-চাঁদপুর রুটের ময়ূর-২ নামের একটি লঞ্চের সঙ্গে ধাক্কায় এ দুর্ঘটনা ঘটে। আজ সোমবার দুপুরের দিকে ফায়ার সার্ভিসের নিয়ন্ত্রণ কক্ষের উপসহকারী পরিচালক মো. এনায়েত হোসেন এ তথ্য জানান।

মো. এনায়েত হোসেন বলেন, ‘ঢাকা-চাঁদপুর রুটের ময়ূর-২ ও মুন্সীগঞ্জ থেকে ছেড়ে আসা দোতলা মর্নিং বার্ড লঞ্চের সঙ্গে ধাক্কার ঘটনা ঘটে। ডুবে যাওয়া ওই লঞ্চটিতে কমপক্ষে ৫০ যাত্রী ছিলেন। এ ঘটনায় এখন পর্যন্ত ৩০ জনের মরদেহ উদ্ধার করেছে ফায়ার সার্ভিস।’

এদিকে কোস্ট গার্ড সদর দপ্তরের মিডিয়া কর্মকর্তা লে. কমান্ডার হায়াৎ ইবনে সিদ্দিক  বলেন, ‘এখন পর্যন্ত আমরা ৩১ জনের মরদেহ বুঝে পেয়েছি।’

মো. এনায়েত হোসেন আরো বলেন, ‘উদ্ধার করা ৩০ মরদেহের মধ্যে পুরুষ ১৯ জন, নারী আটজন এবং শিশু তিনটি। ফায়ার সার্ভিসের অন্তত ১২ জন ডুবুরি সেখানে উদ্ধার কার্যক্রম চালাচ্ছে।’

জানা গেছে, ডুবে যাওয়া লঞ্চটি উদ্ধার করার জন্য উদ্ধারকারী জাহাজ হামজা নারায়ণগঞ্জ থেকে ঢাকার উদ্দেশে রওনা হয়েছে।