ভারতের আসামে ভূমিকম্প হওয়ায় দেশের বিভিন্ন স্থানে প্রভাব

প্রকাশিত
স্টাফ রিপোর্টার: ভারতের আসামে ভূমিকম্পে রাজধানীসহ দেশের বিভিন্ন স্থানে মাঝারি ভূমিকম্প অনুভূত হয়েছে। কয়েক সেকেন্ড স্থায়ী হওয়া এই ভূমিকম্পে দুলেছে নারায়ণগঞ্জ, রাজশাহী, নাটোর, ময়মনসিংহ, নেত্রকোনা, জামালপুর, শেরপুর, নীলফামারী, দিনাজপুর, লালমনিরহাট ও পঞ্চগড়।
বুধবার (১২ সেপ্টেম্বর) সকাল ১০টা ৫০ মিনিটে এ ভূমিকম্প অনুভূত হয়। রিখটার স্কেলে এ কম্পনের মাত্রা ছিলো ৫ দশমিক ৬।
এ সময় রাজধানীর বিভিন্ন এলাকার বহুতল ভবনের ওপরে থাকা মানুষ বেশ দুলুনি অনুভব করেন। ভূমিকম্পে তাৎক্ষণিকভাবে কোনো হতাহত কিংবা ক্ষয়ক্ষতির খবর পাওয়া যায়নি। তবে রাজধানীতে আতঙ্কিত হয়ে অনেককেই রাস্তায় নামতে দেখা গেছে।
জানা যায়, ভূমিকম্পের উৎপত্তিস্থল উত্তর-পূর্ব ভারতের আসামে। ভূপৃষ্ট থেকে ভূমিকম্পের উৎপত্তিস্থল ছিলো ১০ কিলোমিটার গভীরে। এ কম্পনে ভারতের গুয়াহাটি, পশ্চিমবঙ্গ, বিহার এবং ভুটানের থিম্পুতেও ভূকম্পন অনুভূত হয়েছে বলে জানিয়েছে আন্তর্জাতিক সংবাদমাধ্যম।
ভূমিকম্প অনুভূত হওয়ার তথ্যের সত্যতা নিশ্চিত করেছে আবহাওয়া অধিদপ্তর। অধিদপ্তরের ভূকম্পন পর্যবেক্ষণ কেন্দ্রের কর্মকর্তা মমিনুল ইসলাম ইসলাম জানান, ভূমিকম্পের উৎপত্তিস্থল ছিলো ঢাকা থেকে ২৯৩ কিলোমিটার ও রংপুর থেকে ১১৮ কিলোমিটার উত্তর পূর্বে আসামের সপ্তগ্রামের কাছাকাছি এলাকায়।