যশোরে নারীর গলাকাটা লাশ উদ্ধার

প্রকাশিত

যশোর প্রতিনিধি: যশোর শহরের সরকারি সিটি কলেজ ক্যাম্পাস থেকে এক নারীর গলাকাটা লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ।
স্থানীয়রা জানান, বুধবার রাতে তারা বিকট গন্ধ পেয়ে সিটি কলেজ মসজিদের কাছে ডোবার পাশে আসেন। বৃহস্পতিবার ভোরে সেখানে একটি ব্যাগ পড়ে থাকতে দেখে তাদের সন্দেহ হয়। এরপর স্থানীয় শান্তিশৃঙ্খলা কমিটির সদস্যরাও আসেন সেখানে। তারা এসে নিশ্চিত হন পলিথিনে মোড়ানো রয়েছে মানুষের মরদেহ।

যশোর কোতোয়ালি থানার ওসি অপূর্ব হাসান জানান, স্থানীয়দের কাছ থেকে খবর পুলিশ ঘটনাস্থলে যায়। সেখানে পলিথিনবন্দি মানুষের মরদেহ দেখতে পায় পুলিশ। তাদের ধারণা খুন করে হাত-পা বেঁধে পলিথিনবন্দি করা হয়েছে।
হয়তো কয়েকদিন আগে অন্য কোথাও হত্যা করে হতভাগ্য মেয়েটিকে কলেজ ক্যাম্পাসে রেখে গেছে দুর্বৃত্তরা। সেই কারণে মরদেহ থেকে দুর্গন্ধ ছুটছে।

তবে কী কারণে এই হত্যাকান্ড, আর এর সঙ্গে কারা জড়িত, তা পুলিশ এখনো জানতে পারেনি। পুলিশ মরদেহ জেনারেল হাসপাতাল মর্গে নিয়ে যায়।
যশোর কোতোয়ালি থানার ডিউটি অফিসার এসআই হায়াৎ মাহমুদ জানান, বৃহস্পতিবার (৩০ আগস্ট) বিকেল পর্যন্ত মেয়েটির পরিচয় সনাক্ত করা সম্ভব হয়নি।
অন্যদিকে যশোর সদর উপজেলার ঘোড়াগাছা গ্রামের হাজী ফয়েজ উদ্দিনের লিচু বাগান থেকে শরিফুল ইসলাম (৩৫) এক যুবকের মৃতদেহ উদ্ধার করে পুলিশ। শরিফুল ইসলাম গোপালপুর গ্রামের আব্দুস সামাদের ছেলে।
নিহতের ভাই সাইফুল ইসলাম জানান, তার ভাই শরিফুল ইসলাম এলাকার ক্রাউন ইট ভাটায় স্কেভেটার গাড়ি চালান। প্রতিদিনের ন্যায় গত মঙ্গলবার সকাল ৮টার দিকে নিজের বাইসাইকেল নিয়ে কাজের উদ্দেশ্যে বের হন। সারাদিনেও তার কোন খোঁজখবর পায়নি আমরা। খোঁজাখুঁজির একপর্যায়ে বুধবার বিকাল সাড়ে ৫টার দিকে হাজী ফয়েজ উদ্দিনের লিচু বাগানের এক কোণায় তার ব্যবহৃত বাইসাইকেলটি দেখতে পায় ছোটভাই সাইফুল ইসলাম। এসময় আশপাশে খুঁজে তার লাশ দেখতে পায়।