রাজধানীর শাহাজালালে আড়াই কোটি টাকার সিগারেট আটক

প্রকাশিত

শেখ রাজীব হাসান আকাশ,ঢাকাঃ ঢাকা হযরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে ৫ হাজার কার্টুন আমদানি নিষিদ্ধ বিদেশি সিগারেট উদ্বার করেছে শুল্ক গোয়েন্দা এয়ারফ্রেইট ইউনিট দল। আটককৃত সিগারেটগুলো মন্ড ও ৩০৩ ব্র্যান্ডের তৈরী। যার মধ্যে ১০ লাখ শলাকা বিদেশি সিগারেট রয়েছে। আমদানী শুল্ককর সহ এসব সিগারেটের মূল্য প্রায় আড়াই কোটি টাকা। এঘটনায় এখনও পর্যন্ত কাউকে আটক করা যায়নি।

মঙ্গলবার সন্ধ্যায় শাহজালাল বিমানবন্দরের কার্গো কাস্টমস এলাকা থেকে এসব বিদেশী সিগারেটের চালানটি আটক করা হয়।
শুল্ক গোয়েন্দা ও তদন্ত অধিদপ্তরের মহাপরিচালক (ডিজি) ড. মো. সহিদুল ইসলাম আজ ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেছেন।

শুল্ক গোয়েন্দা কর্মকর্তারা জানায়, সোমবার মধ্যরাতে দুবাই থেকে আগত (ইওয়াই-২৫৮) নম্বরের বিমানটি ঢাকা হযরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে এসে অবতরণ করে।

গোপন সংবাদ থাকায় শুল্ক গোয়েন্দারা আমদানি কার্গোতে বিশেষ নজরদারি বজায় রাখে। মালিকবিহীন অবস্থায় শুল্ক গোয়েন্দা এয়ারফ্রেইট ইউনিট দল বিমানবন্দরের কার্গো কাস্টমস এলাকা থেকে ৫টি বড় প্লেট খুলে ৫ হাজার কার্টনে ভর্তি অবস্থায় ১০ লাখ শলাকা বিদেশি সিগারেট জব্দ করা হয়।

পণ্যগুলো হাউজ হোল্ড গুডস ঘোষণায় আনা হয়। আটককৃত সিগারেট গুলো মন্ড ও ৩০৩ ব্র্যান্ডের তৈরী। যার মূল্য প্রায় আড়াই কোটি টাকা।

শুল্ক গোয়েন্দা ও তদন্ত অধিদপ্তরের কর্মকর্তারা আরো জানান, প্যাকেটের গায়ে বাংলায় ধূমপানবিরোধী সতর্কীকরণ লেখা ছাড়া বিদেশি সিগারেট আমদানি করা যায় না। সিগারেটের ওপর উচ্চ শুল্ক (প্রায় ৪৫০%) পরিহারের জন্যই এসব সিগারেট আনা হয়েছে বলে ধারণা করা হচ্ছে। জব্দকৃত পণ্যের বিষয়ে শুল্ক আইনে ব্যবস্থা গ্রহন করা হয়েছে।