শৈলকুপায় চাঁদাবাজদের ভয়ে ৩মাস ধরে ঘর বাড়ি গ্রাম ছাড়া ১টি পরিবার!

প্রকাশিত

ঝিনাইদহ প্রতিনিধিঃ ঝিনাইদহের শৈলকুপায় চাঁদাবাজদের ভয়ে ৩মাস ধরে নরুল ইসলাম নামে এক ব্যাক্তি তার পরিবার নিয়ে বাড়ি ঘর গ্রাম ছাড়া রয়েছে। ঘটনাটি ঘটেছে উপজেলার ত্রিবেনী গ্রামে। এ বিষয়ে তিনি মুখ খুলতে সাহস পাননি। নিরবে গ্রাম ছেড়ে পালিয়ে যায় তবে গত কয়েকদিন আগে শৈলকুপা থানায় লিখিত অভিযোগ দিলে পুলিশ কোনো পদক্ষেপ নেয়নি বলে তিনি অভিযোগ করেন। নুরুল ইসলাম জানায়, ত্রিবেনী গ্রামের লাল্টু, টিটু, রেজাউল, বল্টু ও তপেলসহ ৮/১০ জন গত ৪মাস আগে তার কাছে ৫০হাজার টাকা চাঁদা দাবী করে। চাঁদার টাকা দিতে অস্বীকার করলে তাদের পরিবারের উপর বিভিন্ন অত্যাচার চালায়। এছাড়া তাদের কে গ্রাম ছাড়া করবে বলে বিভিন্ন হুমকি-ধামকি দিতে থাকে। এক পর্যায়ে গত তিন মাস আগে নরুল ইসলামের পরিবারকে গ্রাম ছাড়া করতে বাধ্য করে চাঁদাবাজ গ্রুপ। তিনি গ্রামে ফিরে আসতে প্রশাসনসহ বিভিন্ন জায়গায় ঘুরছেন। এব্যাপারে তিনি থানায় লিখিত অভিযোগ দিলে কোনো প্রতিকার মেলেনি বলেও জানান নুরুল ইসলাম। তিনি বিচারের আশায় আদালতের স্বরণাপূর্ন হবেন বলে জানিয়েছে। এবিষয়ে ত্রিবেনী ইউনিয়নের চেয়ারম্যান জহুরুল হক খান এঘটনার সুষ্ঠ তদন্ত করে অপরাধীদের শাস্তি দাবি করেন। উল্লেখ্য, এর আগে ত্রিবেনী রিশি সম্প্রদায়ের জয় গোপাল ও কার্তীক দাসের ২টি পরিবারকে এই চাঁদাবাজরা গ্রাম ছাড়া করে। জোর করে তাদের জমি রেজিস্ট্রি করে নেয় চাঁদাবাজরা। এছাড়া এদের অত্যাচারে বাবা মায়ের ভিটা ছেড়ে চলে আসে ত্রিবেনী গ্রামের নাসির মন্ডল। বর্তমানে নাসির মন্ডলের বাড়ীতে চাঁদাবাজ গ্রুপের মুল হোতা লাল্টু বসবাস করছে। এবিষয়ে ঝিনাইদহের সহকারী পুলিশ সুপার (শৈলকুপা) সার্কেলের এএসপি তারেক আল মেহেদী জানান, বিষয়টি তার জানা নাই। অভিযোগ দিলে অবশ্যই তদন্ত করে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।