হজ ব্যবস্থাপনায় গ্রুপ লিডার বর্জনের পরামর্শ’

প্রকাশিত

সুষ্ঠু হজ ব্যবস্থাপনার স্বার্থে গ্রুপ লিডারদের বর্জন এবং প্রাক-নিবন্ধন থেকে নির্বাচিতদের হজ প্যাকেজের পুরো টাকা হজ এজেন্সির ব্যাংকের অ্যাকাউন্টে পরিশোধের পর হজযাত্রীদের চূড়ান্ত নিবন্ধন সম্পন্ন করার দাবি জানিয়েছে হজ এজেন্সির মালিকেরা।

বুধবার রাজধানীর একটি হোটেলে সাধারণ সদস্যদের সঙ্গে মতবিনিময় সভায় হাবের নেতা ও এজেন্সি মালিকেরা এসব কথা বলেন।

হজ এজেন্সিজ এসোসিয়েশন অব বাংলাদেশ (হাব) নেতাদের মতে, মক্কা-মদিনায় হাজীদের সেবা নিশ্চিতকরণ এবং সুষ্ঠু হজ ব্যবস্থাপনার স্বার্থেই উল্লেখিত সিদ্ধান্ত বাস্তবায়ন করতে হবে। হজ নিয়ে গ্রুপ লিডারদের প্রতারণা চিরতরে বন্ধ করতে হবে।

মূলতঃ সুষ্ঠু হজ ব্যবস্থাপনার স্বার্থে মধ্যস্বত্বভোগীদের কাছ থেকে হজ এজেন্সি ও হজযাত্রীদেরকে হয়রানি থেকে রক্ষা করতে এমন দাবী উঠেছে।

এজেন্সি মালিকদের দাবী, মধ্যস্বত্বভোগী ও গ্রুপ লিডারদের অপতৎপরতা রোধে হজ প্যাকেজের সম্পূর্ণ টাকা পরিশোধের পর হজযাত্রীদের চূড়ান্ত নিবন্ধনের বিকল্প নেই।

হাব সভাপতি আব্দুস সোবহান ভূঁইয়ার সভাপতিত্বে ও মহাসচিব শাহাদাত হোসাইন তসলিমের পরিচালনায় সভায় বক্তৃতা করেন, হাবের সাবেক সভাপতি ইব্রাহীম বাহার ও জামাল উদ্দিন আহম্মদ, বর্তমান সিনিয়র সহসভাপতি ইয়াকুব শরাফতি, কোষাধ্যক্ষ মাওলানা ফজলুর রহমান, ইসি সদস্য ড. আব্দুল্লাহ আল-নাসের, নাজিম উদ্দিন, ক্বারী গোলাম মোস্তফা, মাজহারুল হক ভূঁইয়া, সাধারণ সদস্য গোলাম মোস্তফা, ফরিদ উদ্দিন ও মাওলানা মাহাবুবুর রহমান প্রমুখ।

সভায় নেতৃবৃন্দ বলেন, সরকার হজ ব্যবস্থাপনাকে সুন্দর ও সহজ করতে ব্যাপক উদ্যোগ নিয়েছে। এ উদ্যোগ ভেস্তে যাবে মধ্যস্বত্বভোগীদের দৌরাত্ম বন্ধ না করলে।

সভায় নেতারা হজ নিয়ে প্রতারণা হ্রাসের লক্ষ্যে আর কোনো নতুন হজ লাইসেন্স ধর্ম মন্ত্রণালয় থেকে ইস্যু না করার জন্য জোর দাবী জানান।

হাবের মহাসচিব শাহাদাত হোসাইন তসলিম বলেন, ২০১৮ সালের হজ ব্যবস্থাপনার কার্যক্রমকে সুষ্ঠু ও সুন্দর করার জন্য ধর্ম মন্ত্রণালয়ের সহযোগিতায় আমরা সর্বাত্মক প্রচেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছি।

Be the first to write a comment.

Leave a Reply