হাতিয়ায় চেয়ারম্যানের বাড়িতে সন্ত্রাসীদের আগুন, আতংকিত এলাকাবাসী!!!

প্রকাশিত
নোয়াখালী (হাতিয়া) সংবাদদাতা : হাতিয়ায় এক চেয়ারম্যানের বাড়িতে আগুন দিয়েছে সন্ত্রাসীরা। দুটি ঘরসহ আশপাশের খড়ের খোয়া পুড়ে ছাঁই।
এলাকাবাসী আতংকিত। ঘটনাটি ঘটেছে গতকাল রবিবার রাত ১০টার সময় সোনাদিয়া ইউনিয়নের ২নং ওয়ার্ডের মধ্য মাইচরা গ্রামে চেয়ারম্যান আলহাজ নুরুল ইসলাম (মালেশিয়া) নিজ বাড়ীতে তার ভাইইউনিয়ন আ.লীগের দপ্তর সম্পাদক মোঃ হাবিবুর রহমানের ঘরে ও ইউনিয়ন যুবলীগ নেতা মোঃ কামরুল ইসলামের বাড়ীতে এ অগ্নিকান্ড ঘটায়। এসময় পুরো এলাকায় লোকজন আতংকিত হয়ে পড়ে।
স্থানীয় ও প্রত্যক্ষদর্শী সোহেল, কামাল, আনোয়ার রাছেল, মঞ্জু, নুরুল ইসলাম মেম্বার জানায়, রবিবার রাত ১০টার সময়  স্থানীয় এমপি আয়েশা ফেরদৌস ও তার স্বামী মোঃ আলীর সমর্থিত সন্ত্রাসী জুঙ্গাল যোবায়ের, খোড়া বাবলু, রহিম ডাকাত, মোছলেম চোরা, হাসান, গুল আজাদ, শরীফ, আজাদ ডাকাত ও নবীরসহ ২০/২৫জন একত্রি হয়ে পরিকল্পিত ভাবে এ অগ্নিকান্ড ঘটায়। এসময় বাড়ীতে কোন পুরুষ না থাকায় সন্ত্রাসীরা ফাঁকা গুলি ছোড়ে এলাকায় আতংক সৃষ্টি করে পরে এ দুই বাড়ীতে ঢুকে ঘরে থাকা মহিলাদেরকে পুলিশ পরিচয় দিয়ে তাদের ওপর পাশবিক নির্যাতন করে।
মহিলাদের চিৎকার শুনে আশপাশের লোকজন ছুটে আসলে সন্ত্রাসীর ঘর দুটিতে আগুন লাগিয়ে পালিয়ে যায়। আগুনের ভয়াবহতা চারদিকে ছড়িয়ে পড়লে আমরাসহ চারদিক থেকে লোকজন এসে পানি দিয়ে আগুন নিভাতে চেষ্টা করি। এসময়ের ভিতরে দুটি ঘর ও আশপাশের জিনিসপত্র পুড়ে ছাই হয়ে যায়। উল্লেখ্য গত ৯ই ফেব্রুয়ারী হাবিবুর রহমানের ওপর একই সন্ত্রাসীরা হামলা চালিয়ে তার বাড়ীতে অগ্নিকান্ড ঘটাতে গিয়ে পুলিশের মুখে বাধাঁ পেয়ে তারা পালিয়ে যায়।
এব্যাপারে হাতিয়া থানা ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মোহাম্মদ কামরুজ্জামান শিকদার জানান, সোনাদিয়া ইউপি চেয়ারম্যান নুরুল ইসলাম মালেশিয়ার বাড়িসহ দুটি ঘরে স্থানীয় সন্ত্রাসীরা আগুন দিয়েছে বলে শুনেছি। ঘটনাস্থলে পুলিশ পাঠিয়েছি। মামলা করলে ঘটনার সাথে জড়িত থাকা সন্ত্রাসীদের বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা নেয়া হবে।